মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৯:১১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ঘোষণা :

নওয়াপাড়া পৌরসভার এক উজ্জ্বল নক্ষত্রের নাম পৌর মেয়র সুশান্ত কুমার দাস শান্ত

মোঃ কামাল হোসেন,বিশেষ প্রতিনিধি

যশোরের অভয়নগরে অবস্থিত নওয়াপাড়া পৌরসভা ভবন, এই স্থানের মাথা পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক সুশান্ত কুমার দাস শান্ত। তার রাজনৈতিক জীবনে সাধারণ জনগণের সুখ-দুঃখ নিজের মনে করে তার রাজনীতি শুরু। রাজনৈতিক জীবনে তিনি কোন অপরাধের সাথে আপোষ করেননি বলে আজ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আস্থাভাজন হয়ে উঠেছেন। যে শত প্রতিকুলতার মধ্যে ও বার বার বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রাথী হয়ে পৌরসভা নির্বাচনে বিপুল জনসমর্থন নিয়ে, নওয়াপাড়া পৌরসভার দায়িত্ব নিয়ে জনগণের মন জয় করে চলেছেন। নওয়াপাড়া পৌরসভার যেখানে যে সমস্যা সেখানে তার আগমন চোখে পড়ার মত। জানামতে, জনগণের সমস্যা সমাধান না করা পযন্ত হয়তো তার ঘুম হয়না। এটাই সত্যিকারের রাজনীতি এবং একজন নেতার পরিচয়। একজন রাজনীতিবিদের সর্ব প্রথম সাধারণ জনগণের দোঁয়া-আশির্বাদ প্রয়োজন হয়। দোঁয়া-আশির্বাদ পৌর মেয়রের যে আছে তা বলার অপেক্ষা রাখেনা। উল্লেখ‍্য, গত সপ্তাহে গাড়ি দুর্ঘটনার কবলে পড়েছিল এই পৌর পিতা। শুধু সৃষ্টিকারী তার মহিমায় পৌর মেয়রকে অক্ষত অবস্থায় হেফাজত করেছেন। এটা শুধুই জনগণের ভালোবাসা দোঁয়ার প্রতিফলনে পাওয়া। পৌরসভার অনেকে সংবাদটি শুনে সৃষ্টিকর্তার কাছে দোঁয়া করে বলেন, আমাদের মেয়রকে দীর্ঘ আয়ু দান করুন। এমন হাজারো মানুষের দোঁয়া-আশির্বাদ মেয়র সুশান্ত কুমার দাস শান্তর উপর বর্ষিত আছে বলে আজ সকল প্রতিকুলতার মধ্যে তিনি পৌরসভাকে ডিজিটাল রুপে রুপান্তর করার জন্য অক্লান্ত পরিচ্ছম করে চলেছেন। সত্যি বলতে কি, মানুষের দুঃখ দেখে যে নেতার হৃদয় কেঁদে ওঠে সেই নেতার সাথে অন্য কিছুর তুলনা হয়না। গেল পৌরসভা কর্তৃক আয়োজিত ইফতার মাহফিলে পৌর মেয়র জনগণের শান্তির লক্ষে যশোর জেলা প্রশাসক মহোদয়ের কাছে উন্নয়নের ধারা বজায় রাখার জন্য তার সহযোগিতা কামনা করেন। তার দাবির কারনে জেলা প্রশাসক মহোদয়ও প্রতিস্রুতি দেন নওয়াপাড়া পৌরসভাকে সার্বিক সহযোগিতা করার। এমন হাজার মানুষের কান্নায় পৌর পিতার হৃদয়ে নাড়া দিয়ে যায়। পরিশেষে তার দীর্ঘায়ু কামনা করছি এবং সেই সাথে দোঁয়া ও শুভকামনা রইল।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমরা