মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ০৮:৪৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ঘোষণা :

শরীয়তপুর প্রতিনিধি।

শরীয়তপুর বিভিন্ন উপজেলায়
রাস্তা ঘাটে চলতে-ফিরতে কত পাগলই তো আমরা দেখি। তাকে নিয়ে ভাবা তো দূরের কথা, অনেকে দ্বিতীয়বার ফিরে তাকাতেই সংকোচ বোধ করি। অথচ একবারও ভাবি না, সে-ও একজন মানুষ। সমাজে এখনও এমন দুই একজন মানুষ রয়েছে যারা এদের নিয়ে ভাবেন । তাদেরই একজন কিছুদিন হয় করোনা ভাইরাস আক্রান্ত থেকে সুস্থ হয়ে ওঠা গোসাইরহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলমগীর হুসাইন।শরীয়তপুরের গোসাইর হাটের মাছ বাজার সড়কের পাশে ২ দিন যাবৎ পরে ছিলেন মানসিক ভারসাম্যহীন ষাটোর্ধ্ব এক নারী। রোদ বৃষ্টি সবই গেছে তার অসুস্থ শরীরের উপর দিয়ে। আশপাশের অনেকে খাবার নিয়ে গেলেও গ্ৰহণ করেননি সে। এমন খবর পেয়ে শুক্রবার রাতে ঘটনাস্থলে ছুটে যান উপজেলা নির্বাহী অফিসার আলমগীর হুসাইন। স্থানীয়দের সহায়তায় নিজ হাতে তার গাড়িতে তুলে নিয়ে গোসাইরহাট হাসপাতালে ভর্তি করেন ইউএনও। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে প্রয়োজনীয় চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন তিনি।জ্বর ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন এই নারী, করোনা পরীক্ষার পর প্রয়োজনীয় চিকিৎসার কথা জানিয়েছেন চিকিৎসক।গোসাইরহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার আলমগীর হুসাইন বলেন, গোসাইরহাটের মাছ বাজার সড়কের পাশে ২ দিন যাবৎ মানসিক ভারসাম্যহীন ষাটোর্ধ্ব এক নারী পরে আছে। খবর পেয়ে সাথে সাথে মাছ বাজারে গিয়ে তাকে এনে হাসপাতালে ভর্তি করেছি। সুস্থতা শেষে পরিবারের সদস্যদের সন্ধান করে স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের ব্যবস্থা করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমরা